প্রাণঘাতী করোনা ভাইরাসে বিশ্বব্যাপী মৃত্যুর মিছিল বাড়ছেই, উপমহাদেশে ও হানা দিয়েছে সংক্রামক এই ভাইরাস, এমন পরিস্থিতিতে দক্ষিণ এশীয় আঞ্চলিক সহযোগিতা সংস্থার (সার্ক) নেতাদের ভিডিও কনফারেন্সে আলোচনার আহ্বান জানিয়েছেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী।

শুক্রবার ১৩ই মার্চ এক টুইট বার্তায় এ আহ্বান জানান নরেন্দ্র মোদী।

মোদী টুইটারে লেখেন, করোনা ভাইরাস ঠেকাতে আমি সার্ক দেশগুলোর নেতাদের একটি শক্তিশালী কৌশল গ্রহণের প্রস্তাব করছি। আমাদের জনগণকে সুস্থ রাখার স্বার্থে আমরা এ নিয়ে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে আলোচনা করতে পারি। সুস্থ পৃথিবীর জন্য সম্মিলিতভাবে আমরা পৃথিবীতে একটা উদাহরণ সৃষ্টি করতে পারি।

বিশ্বজুড়ে প্রায় ১ লাখ ৩০ হাজার করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। মারা গেছেন ৪ হাজারেরও বেশি।

ভারতে ৭০ জনের বেশি করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। তবে এখন পর্যন্ত মারা গেছেন মাত্র একজন। পাকিস্তানেও ২০ জনের বেশি আক্রান্ত হয়েছেন।
টুইট বার্তায় বলেন, বিশ্বে এশিয়ার উল্লেখযোগ্য জনগোষ্ঠীর বসবাস দক্ষিণ এশিয়ায়। তাদের সুস্থতা নিশ্চিত করতে কোনো প্রকার বাছাই করা উচিত নয়।
ভারতীয় সংবাদ সংস্থা আইএএনএসের খবরে বলা হয়েছে, পাকিস্তান করোনা ভাইরাস মোকাবিলায় ভারতসহ প্রতিবেশী দেশগুলোর সঙ্গে কাজ করার আগ্রহ প্রকাশ করেছে।

এদিকে. পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান করোনা ভাইরাস মোকাবিলায় তার সরকারের পদক্ষেপগুলো নিয়ে আলোচনা করতে জাতীয় সুরক্ষা কমিটির জরুরি সভা ডেকেছে।

করোনা ভাইরাসে বিশ্বব্যাপী শুক্রবার পর্যন্ত মৃতের সংখ্যা বেড়ে ৪ হাজার ৯৯০ জনে দাঁড়িয়েছে। এরমধ্যে শুধু চীনেই মারা গেছেন তিন হাজার ১৭৭ জন। আর বিশ্বের ১২৯টি দেশে এ ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন ১ লাখ ৩৫ হাজার ৮৮৬ জন।

অন্যদিকে চীনের বাইরে সবচেয়ে বেশি আক্রান্ত ও মৃত্যুর সংখ্যা ইতালিতে। দেশটিতে আক্রান্তের সংখ্যা ১৫ হাজার ১১৩ জন, আর মারা গেছেন ১ হাজার ১৬ জন। ইতালির পরেই রয়েছে ইরান। সেখানে আক্রান্ত হয়েছেন ১০ হাজার ৭৫ জন, মারা গেছেন ৪২৯ জন। আর দক্ষিণ কোরিয়ায় আক্রান্ত হয়েছেন ৭ হাজার ৯৭৯ জন, মারা গেছেন ৭১ জন। পরিসংখ্যান অনুযায়ী, ইতালি ও ইরানের চেয়ে দক্ষিণ কোরিয়ায় মৃত্যুহার কম।

গত বছরের শেষদিকে চীনের হুবেই প্রদেশের উহান থেকে ছড়িয়ে পড়ে করোনা ভাইরাস। যাতে লাফিয়ে বাড়ছে মৃত্যু সংখ্যা। প্রায় প্রতিদিনই ভাইরাসের কেন্দ্রস্থল উহানে যেমন নতুন রোগী বাড়ছে, তেমনি নতুন দেশ থেকে করোনা আক্রান্ত রোগীর তথ্য জানানো হচ্ছে। সবশেষ তথ্যানুযায়ী ভাইরাসটি এরই মধ্যে বাংলাদেশসহ বিশ্বের ১২৯টি দেশে ছড়িয়েছে। এসব দেশ থেকে নতুন রোগীর তথ্য জানানো হচ্ছে। পাশাপাশি যোগ হচ্ছে নতুন দেশের নাম।

রিপ্লাই দিন

Please enter your comment!
Please enter your name here