সৌদি, কাতার ও কুয়েত প্রবাসীদের ভিসার মেয়াদ বাড়বে: পররাষ্ট্রমন্ত্রী

শেয়ার করুন:


করোনা ভাইরাসের প্রাদুর্ভাবের কারণে দেশে আসা প্রবাসীরা ফিরতে গিয়ে বিড়ম্বনায় পড়লেও তাদের এখন দেশে অবস্থানের পরামর্শ দিয়েছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ কে আব্দুল মোমেন।

বৃহস্পতিবার ঢাকায় মধ্যপ্রাচ্যের পাঁচ রাষ্ট্রদূতের সঙ্গে বৈঠক শেষে তিনি বলেন, সৌদি আরব, কাতার ও কুয়েত প্রবাসী যারা দেশে আছেন, তাদের ভিসার মেয়াদ বাড়বে।

রাষ্ট্রীয় অতিথি ভবন পদ্মায় ওই বৈঠকে সৌদি আরব, কাতার, কুয়েত, সংযুক্ত আরব আমিরাত ও ইরাকের রাষ্ট্রদূতরা উপস্থিত ছিলেন।

ওই সভায় প্রবাসীকল্যাণ মন্ত্রী ইমরান আহমেদ এবং স্বাস্থ্য, বিমান ও প্রবাসী কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের সচিবও যোগ দেন।

সৌদি আরবের বিষয়ে আলোচনা প্রসঙ্গে পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, “সৌদি আরব বলেছে, তারা আপাতত উমরাহ বন্ধ রেখেছেন। প্রবাসী যারা দেশে আছেন তাদের এখন ফেরার দরকার নাই। দুঃশ্চিন্তার কোনো কারণ নাই। তাদের ভিসা এক্সটেনশন হবে।

“আর যারা নতুন করে কাজে যেতে চাচ্ছেন, তারাও পরে গিয়ে একই স্থানে কাজে যোগ দিতে পারবেন।”

‘করোনাভাইরাস নেই’- কুয়েতে যেতে এমন সার্টিফিকেটের জন্য আইইডিসিআরে কিছুদিন আগে লাইন লেগেছিল। তবে সেখানে এ ধরনের কোনা সার্টিফিকেটের প্রয়োজনের বিষয় উড়িয়ে দেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী মোমেন।

তিনি বলেন, “কুয়েত বলেছে, তারা সব দেশের ফ্লাইট বন্ধ করেছে। যারা দেশে এসেছেন, পরে যাবেন। কাজকর্মে অসুবিধা হবে না। সেখানে যেতে করোনাভাইরাসের সার্টিফিকেট নেওয়ার কথা বলা হচ্ছে, তারও কোনো দরকার নাই “

কাতার প্রসঙ্গে পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, “কাতার ১৪টি দেশের ফ্লাইট বন্ধ করেছে। আমাদের বাংলাদেশি যারা, তারা কিছুদিন পরে ঠিক যেতে পারবেন। তাদের ভিসা এক্সটেন্ট করা হবে। তারা কোনো সমস্যার মুখোমুখি হবেন না। ভিসার সমস্যাও হবে না।

“যারা নতুন তাদেরও পরে গেলে অসুবিধা হবে না।”

প্রবাসীদের যারা যে দেশে রয়েছেন, তাদের আপাতত সেখানেই থাকার পরামর্শ দেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী।


শেয়ার করুন:

রিপ্লাই/মন্তব্য করুন

আপনার মন্তব্য লিখুন
এখানে আপনার নাম লিখুন