রাজকে ‘ভয়ংকর মানুষ’ উল্লেখ করে ডিভোর্স নিয়ে যা বললেন পরীমণি

0 177

অনলাইন ডেস্ক:

চিত্রনায়ক শরিফুল ইসলাম রাজকে ডিভোর্স দিয়েছেন ঢাকাই চলচ্চিত্রের জনপ্রিয় নায়িকা পরীমণি। গত ১৮ সেপ্টেম্বর অভিনেতার উদ্দেশে ডিভোর্স লেটার পাঠিয়েছেন অভিনেত্রী। সম্পর্কের দুই বছর পূর্ণতা পাওয়ার আগেই ভেঙে গেল তাদের সংসার। তবে এই অল্প কয়েকদিনের সংসারে অনেক সমস্যা পোহাতে হয়েছে পরীমণিকে। যা তার ভাষ্যতে স্পষ্ট।

বুধবার (২০ সেপ্টেম্বর) রাত ১০টায় সোশ্যাল মিডিয়া ফেসবুকে ব্যক্তিগত অ্যাকাউন্টে এক স্ট্যাটাসে এমনটাই জানালেন পরীমণি। একই সঙ্গে রাজকে ‘ভয়ংকর মানুষ’ উল্লেখ করে দাম্পত্যে থাকাকালীন নানা কলহের কথাও লিখেছেন নায়িকা।

পরীমণি লেখেন, ‘নিশ্চয়ই এই স্ট্যাটাসের কথা মনে আছে অনেকের। সেবারও রাজ পাঁচ দিনের মাথায় বাসায় ফিরে আমার ফেসবুক থেকে এটা ডিলিট করে দিয়েছিল। তারপর এসব ঘটনা সে বারবার করেছে। সরি বলা, না খেয়ে থাকা, পা ধরে মাফ করে দাও, আর হবে না, এমনকি সুইসাইডের মতো হুমকিতেও ব্ল্যাকমেলের শিকার হতে হয়েছে আমাকে।’

‘একই রকম ভুলের ক্ষমা কতবার করা যায়, আমি জানি না। আমি শুধু সব ভুলে সুন্দর স্বাভাবিক একটা পারিবারিক সম্পর্ক চেয়েছিলাম। কিন্তু সে কখনোই এই সম্পর্কটাকে ওউন করেনি। সবার সামনে আমার বৌ, আমার বাচ্চা করে বেড়ানো ভয়ংকর মানুষ একজন। যে কিনা এই সম্পর্কটাকে শুধু নিজের স্বার্থে ইউজই করে গেল প্রতিনিয়ত।’

তিনি আরও লেখেন, ‘আমি এমন ভয়ংকর একজন মানুষকে বারবার সুযোগ দিয়েছি। সেও সুযোগ পেত, কারণ আইনিভাবে তার সঙ্গে আমার বিবাহবিচ্ছেদ হয়নি। এসবে বারবার আমি অসন্মানিত হয়েছি আপনাদের কাছেও। আমাকে ক্ষমা করবেন।’

এরপরই ডিভোর্সের ব্যাপারে তিনি লেখেন, ‘আমি তাকে অফিশিয়ালি ডিভোর্স দিয়েছি। খুবই স্বাভাবিক ওয়েতে। এটাও তাকে আমার এক প্রকার ক্ষমা করে দেয়া। না হয় আমার সঙ্গে যে অন্যায়গুলো করেছে, তাতে তার জেল হওয়ার কথা।’

সবশেষ একমাত্র ছেলে রাজ্যকে নিয়ে আলোচিত এ নায়িকা লেখেন, ‘আমার ছেলের যাবতীয় খরচ, মানে ভরণ-পোষণ থেকে আগামীতে পড়াশোনা যা কিছু আছে সব আমি বহন করব। এতদিন যেভাবে করেছি। বাচ্চার ফুল গার্ডিয়ান শিপ এখন তার মা’র। এ বিষয়ে যা কিছু বলার আমার আইনজীবীরা বলবেন। ধন্যবাদ।’

Leave A Reply

Your email address will not be published.